শুক্রবার, ৩ জুলাই ২০২০

ফেসবুক থেকে

প্রধানমন্ত্রীর দৈনিক খরচ ১০ কোটি টাকা হলেও কেউ অবাক হয়না

১. ‘ঢাকা মেডিক্যালে এক মাসে খাওয়ার বিল ২০ কোটি টাকা কী করে হয়?’ আজ সংসদে বিরোধীদলীয় উপনেতার প্রশ্নের জবাবে উল্টা প্রশ্ন করেন প্রধানমন্ত্রী। অথচ এই দূর্নীতির কথা দেশের প্রায় সব মানুষ জানলেও ‘দিবা-নিশি সজাগ থেকে সব কিছু মনিটরিং করা’ প্রধানমন্ত্রী নাকি কিছুই জানেন না! তাই বিস্ময় প্রকাশ করে উল্টা প্রশ্ন প্রধানমন্ত্রীর। তবে প্রধানমন্ত্রী আশ্বাস দিয়েছেন, ‘এটা খতিয়ে দেখা হবে।’ আর …

বিস্তারিত

মুখে মুখে আমরা সিঙ্গাপুর-কানাডাকে ছাড়িয়ে গেছি

সামিয়া রহমান এই উন্নয়ন দিয়ে কি হবে! যে উন্নয়নে সাধারণ মানুষ সেবা পায় না! মুখে মুখে আমরা সিঙ্গাপুর-কানাডাকে ছাড়িয়ে গেছি। কাগজে কলমে অনেক কিছুই। এখন মনে হয়, বাস্তবে আদতে শূন্য ।…. শূন্য শূন্য শূন্য। কেন স্বাস্থ্য খাতে এতোটাই দুর্দশা? কেন আইসিউ স্থাপনে জেলা, উপজেলা বা শহরে এতোটাই কার্পণ্য? টাকাতো যথেষ্ট বরাদ্দ হয়। যায় কোথায়? কেউ কি দেখার নেই? কেউ নেই? …

বিস্তারিত

প্রধানমন্ত্রীর কাছে শুধুই “ভিআইপি লাইভস ম্যাটার” ক্ষমতায় থাকতে দেশের সাধারন মানুষের কোন প্রয়োজন হয় না

প্রধানমন্ত্রী উনার দলের এমপি, মন্ত্রী, মেয়র, নেতা ও ভিআইপিদের দ্রুত চিকিৎসার দায়িত্ব নিচ্ছেন। তাদের জন্য দ্রুততার সাথে সিএমএইচ, এয়ার এম্বুলেন্স, হেলিকপ্টার, আইসিইইউ, ভেন্টিলেটরসহ সব সুবিধা নিশ্চিত করছেন। কিন্তু দেশের সাধারন মানুষগুলো হাসপাতাল থেকে হাসপাতাল ঘুরেও চিকিৎসা না পেয়ে রাস্তায়ই মারা যাচ্ছে, প্রধানমন্ত্রী তাদের কোন খবর রাখেন না। সিএমএইচ, এয়ার এম্বুলেন্স, হেলিকপ্টার এদের জন্য নয়। কারন প্রধানমন্ত্রীর ক্ষমতায় থাকতে দেশের সাধারন …

বিস্তারিত

বেশিরভাগ মানুষই কেমন যেন মেন্টাল ট্রমায় ভুগছে

কাজী ওয়াজেদ প্রথমেই বলে নেই আমি কিন্তু কোনো ডাক্তার না। তবে ইদানীং মানুষজনের সাথে কথা বলে মনে হচ্ছে বেশিরভাগ মানুষই কেমন যেন মেন্টাল ট্রমায় ভুগছে। সুস্থ মানুষগুলোও শুধু শুধুই করোনা আতংকে ভুগে মানসিক ব্যাধিতে আক্রান্ত হচ্ছে। ইদানীং বন্ধুজন সহ পরিচিত মহলে কারো সাথে কথা বললেই বলছে গলায় খুশখুশে ভাব। আবার কেউ বলছে গলা সামান্য ব্যাথা ব্যাথা করছে। একই ব্যক্তি কথার …

বিস্তারিত

একজন ডাক্তারের মর্মস্পর্শী বর্ণনা

শহীদ সোহরাওয়ার্দী মেডিকেল কলেজের ডা. সাদিয়া আফরিন ত্রিনা ফেসবুকে লিখেছেন, ‘রোগীকে রিসিভ করা এবং তার ডেথ সার্টিফিকেট দেওয়া হয় মাত্র ২১/২২ ঘণ্টার ব্যবধানে। একজন ডাক্তার হয়ে এই কাজটি করা কতটা কঠিন, সেটা আমরাই জানি। আমরাও মানুষ। আমাদেরও মন খারাপ হয়। কিন্তু চোখে পানি আসা যাবে না। কারণ, আমরা যে ডাক্তার!’ চিকিৎসক ডা. সাদিয়া আফরিন ত্রিনার ফেসবুক পোস্টটি পাঠকদের জন্য তুলে …

বিস্তারিত

একরুমে স্বামীর মৃতদেহ, অন্যরুমে তিনজন নিঃশব্দ অপেক্ষায়

প্নের দেশে ভাগ্যের চাকা ঘুরাতে স্বামী রতন চৌধুরী ও স্ত্রী সুজাতা চৌধুরী সন্তানসহ এসেছিলেন এই স্বপ্নের দেশ আমেরিকায়। ভালোই চলছিল তাঁদের সংসার।নিজে কাজ করেন, স্বামী কাজ করেন, দুই সন্তান স্কুলে যায়। করোনার বিপদ সংকেত পাবার সাথসাথেই স্বামী ছুটি নিয়ে বাড়ি ঢুকলেন, সন্তানরাও বাড়িতে। সুজাতা চৌধুরী নিজের অজান্তেই ভাইরাস বাড়ি নিয়ে আসলেন কাজের জায়গা থেকে। নিজে মারাত্মক অসুস্থ হবার আগেই স্বামী …

বিস্তারিত

করোনা পরিস্থিতি খুব উদ্বেগজনক : আসিফ নজরুল

দেশে করোনা পরিস্থিতি খুব উদ্বেগজনক জানিয়ে সবাইকে সতর্কভাবে থাকার জন্য বলেছেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের আইন বিভাগের অধ্যাপক আসিফ নজরুল। আজ বৃহস্পতিবার নিজের ফেসবুক পাতায় স্ট্যাটাস দিয়ে এ কথা জানান তিনি। আসিফ নজরুলের স্ট্যাটাস : খবরদার অত্যন্ত জরুরি প্রয়োজন ছাড়া বাইরে যাবেন না। গেলে অবশ্যই মাস্ক পরবেন। এসে জুতো বা স্যান্ডেল বাসার বাইরে রাখবেন। বাইরে থেকে কেনা জিনিসের পলিথিন ফেলে দেবেন। কেনা …

বিস্তারিত

ভোটের স্লিপ ঘরে ঘরে গিয়ে দিতে পারলে ত্রাণ কেন নয়?

করোনাভাইরাস পরিস্থিতিতে সবচেয়ে বেশি সমস্যায় পড়েছেন দিন আনা দিন খাওয়া মানুষ। বাংলাদেশ সহ বহু দেশে লাখ লাখ মানুষ পড়েছেন বিপাকে। একে তো কাজ নেই, হাতে কোনও জমানো টাকা নেই। সকালে ওঠার পর থেকে চিন্তা, আজ খাবেন কী! বাংলাদেশে বিপাকে পড়া মানুষদের সরকারিভাবে সহায়তা করা হচ্ছে। এছাড়া ব্যক্তি পর্যায়ে এবং বেসরকারি সংগঠন থেকেও অনেকে দুস্থ মানুষদের পাশে দাঁড়াচ্ছেন। বাংলাদেশ জাতীয় ক্রিকেট …

বিস্তারিত

”নিউইয়র্ক থেকে ফিরে আমি হোম কোয়ারেন্টাইনে আছি”

বেশ আগে প্রতিশ্রুতি দেয়া একটি বইমেলায় অংশ নিতে আমেরিকায় গিয়েছিলাম। ওয়াশিংটনে প্রকোপ থাকলেও নিউইয়র্কে করোনাভাইরাসের প্রকাশ পায়নি তখনও। ভাইরাসটির সংক্রমণ বাড়ার পরপরই আমেরিকার বিভিন্ন স্টেটে সতর্ক বার্তা জারি হয়ে যায়। তারপর ঘর থেকে বের হইনি একদম। এ বছর মে মাসের ৩০, ৩১ তারিখে নিউইয়র্কে অনুষ্ঠিতব্য হুমায়ূন আহমেদ সাহিত্য ও সাংস্কৃতিক সম্মেলন ২০২০ এর সংবাদ সম্মেলন বাতিল এবং মূল অনুষ্ঠানের তারিখ …

বিস্তারিত

তাহলে আগাম সচেতনতা ও সতর্কতার প্রশ্ন কোথায় দাঁড়াল?

শিক্ষামন্ত্রী বলেছেন, শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধের পরিবেশ এখনো হয়নি। বিশেষজ্ঞদের পরামর্শ নেবেন।চিকিৎসকরা তো বলছেনই লোক সমাগমে না যেতে। স্কুল-কলেজ ও বিশ্ববিদ্যালয়ে গিজগিজ করছে ছাত্র-ছাত্রী স্টাফরা।পরিবেশ কি খুব স্বাস্থ্যকর? ক্যাম্পাস ও হলের পরিবেশ কেমন? তাহলে আগাম সচেতনতা ও সতর্কতার প্রশ্ন কোথায় দাঁড়াল? আমাদের সন্তান বা শিক্ষক স্টাফরা আক্রান্ত হলেই ব্যবস্থা নেবেন? কবে বন্ধের পরিবেশ হবে! ভারতে দু’জন মারা গেছে। তার আগেই দিল্লীর …

বিস্তারিত