সর্বশেষ সংবাদসারা বাংলাস্বাস্থ্য

রংপুর মেডিক্যালে কাঙ্ক্ষিত চিকিৎসা না পেয়ে ফিরে যাচ্ছেন রোগীরা

রংপুর মেডিক্যালে কাঙ্ক্ষিত চিকিৎসা না পেয়ে ফিরে যাচ্ছেন রোগীরা
রংপুর মেডিক্যালে কাঙ্ক্ষিত চিকিৎসা না পেয়ে ফিরে যাচ্ছেন রোগীরা। ফলে অনেকটা ফাঁকা পড়ে আছে শয্যা। রোগীর স্বজনদের অভিযোগ, করোনার সংক্রমণের ভয়ে রোগীদের কাছে আসছেন না চিকিৎসকরা। তাই বাধ্য হয়ে হাসপাতাল ছাড়ছেন তারা।

দেশে কঠোর বিধিনিষেধ শুরুর আগেও রংপুরে মেডিক্যালে ছিল রোগীর চাপ। ১ হাজার শয্যার বিপরীতে হাসপাতালে প্রতিদিন চিকিৎসাসেবা নিয়েছেন প্রায় দ্বিগুণ। তবে, গেল এক সপ্তাহ হাসপাতালটির অধিকাংশ শয্যা ফাঁকা। চিকিৎসকদের উপস্থিতিও কম।

রোগীর স্বজনদের অভিযোগ, করোনার কারণে চিকিৎসকরা ঠিকমতো রোগী দেখছেন না। তাই বাধ্য হয়ে হাসপাতাল ছাড়ছেন তারা।

তারা বলেন, করোনার ভয়ে অনেক ডাক্তার আসে না। ইন্টার্ন ডাক্তাররা কোনরকম চিকিৎসা দিয়ে ছাড়পত্র দিয়ে চলে যেতে বলে। তারা বলে কোন বড় ডাক্তার নেই এখানে কোন চিকিৎসা হবে না।

তবে এসব অভিযোগ ভিত্তিহীন দাবি করে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ বলছে, করোনা সংক্রমণ বেড়ে যাওয়ায় চিকিৎসকদের শিফট আকারে দায়িত্ব দেয়া হয়েছে।

রংপুর মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতাল পরিচালক ডা. মো. রেজাউল করিম বলেন, রোগীর চিকিৎসা সেবা ব্যাহত হবে না এবং একসাথে অনেক ডাক্তারও আক্রান্ত হবে না এভাবে সমন্বয় করেই কাজ করা হচ্ছে। একসাথে অনেকে আক্রান্ত হলে তখন ডাক্তারেরও সংকট দেখা দিবে।

বিভাগের ৮ জেলার কয়েক লাখ মানুষের চিকিৎসার শেষ আশ্রয়স্থল রংপুর মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতাল।  ভোগান্তি কমাতে দ্রুত ব্যবস্থা নেব কর্তৃপক্ষ–এমনটাই প্রত্যাশা রোগী ও তাদের স্বজনদের।