শনিবার, ১২ জুন ২০২১
হোম » বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি »  ভারতে নতুন ডিজিটাল আইন নিয়ে নীরবতা ভেঙেছে টুইটার

 ভারতে নতুন ডিজিটাল আইন নিয়ে নীরবতা ভেঙেছে টুইটার

ভারতের জনগণের প্রতি গভীরভাবে প্রতিজ্ঞাবদ্ধ টুইটার। ভারতে নতুন ডিজিটাল আইন নিয়ে নীরবতা ভেঙেছে টুইটার। তারা এই আইন নিয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করেছে।  ভারতে মুক্ত মত প্রকাশের ক্ষেত্রে এই আইন হবে বড় রকমের হুমকি। আইনগত নির্দেশ দেয়ার ৩৬ ঘন্টার মধ্যে টুইটার থেকে যেকোনো কন্টেন্ট নামিয়ে বা মুছে দিতে বলা হবে। টুইটারকে ‘কংগ্রেসের টুলকিট’ হিসেবে আখ্যায়িত করা ভারত সরকারের সঙ্গে যখন বিরোধপূর্ণ অবস্থার মধ্যে এই সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম  এমন মন্তব্য করেছে।

আইনের অধীনে ভারতে টুইটারকে একটি কমপ্লায়েন্স অফিস খুলতে হবে। এরই মধ্যে ভারত সরকারের বিরুদ্ধে এ উদ্যোগের কারণে মামলা করেছে আরেক সামাজিক যোগাযোগ বিষয়ক সাইট হোয়াটসঅ্যাপ।   আইনটি অসাংবিধানিক এবং ব্যক্তিগত গোপনীয়তার অধিকারকে লঙ্ঘন করে।

করোনা মহামারির সময় এটা জনগণকে সমর্থন, সহযোগিতা দিয়েছে।কিন্তু আইনের কিছু অংশ সংশোধনের আহ্বান জানানোর পরিকল্পনা নিয়েছে তারা।  আমাদের এই সেবা অব্যাহত রাখার জন্য, ভারতীয় আইন মেনে চলবো। মুক্ত মত প্রকাশ সুরক্ষিত রাখবো। সুরক্ষিত রাখবো আইনের অধীনে ব্যক্তিগত গোপানীয়তা। কিন্তু এখন ভারতে আমাদের যেসব কর্মী আছেন তাদেরকে নিয়ে এবং যেসব মানুষের সেবা আমরা দিয়ে থাকি তাদের মত প্রকাশের স্বাধীনতা নিয়ে আমরা উদ্বিগ্ন।

আরো পড়ুন

ব্রিটেনের রানি এলিজাবেথের ৯৫তম জন্মদিনে রাষ্ট্রপতি-প্রধানমন্ত্রীর শুভেচ্ছা

ব্রিটেনের রানি এলিজাবেথের ৯৫তম জন্মদিনে রাষ্ট্রপতি-প্রধানমন্ত্রীর শুভেচ্ছা জানিয়েছেন রাষ্ট্রপতি । মো. আবদুল হামিদ এবং প্রধানমন্ত্রী …