বুধবার, ২ ডিসেম্বর ২০২০

বিক্ষোভ করায় মালদ্বীপে গ্রেপ্তার ১৯ বাংলাদেশি

পারিশ্রমিকের জন্য বিক্ষোভ করায় মালদ্বীপে বাংলাদেশি ১৯ শ্রমিককে গ্রেপ্তার করেছে দেশটির পুলিশ। মালদ্বীপের রাষ্ট্র-পরিচালিত সংবাদভিত্তিক চ্যানেল পাবলিক সার্ভিস মিডিয়া (পিএসএম) এক প্রতিবেদনে গ্রেপ্তার হওয়ার বিষয়টি জানিয়েছে।

প্রতিবেদনটিতে বলা হয়েছে, গ্রেপ্তার করা শ্রমিকদের হেফাজতে নিয়েছে মালদ্বীপ পুলিশ সার্ভিস (এমপিএস)। তারা তদন্ত করারও ঘোষণা দিয়েছে।

কয়েক মাসের বকেয়া বেতনের দাবিতে গত ২ জুলাই বিক্ষুব্ধ শ্রমিকেরা মালদ্বীপের ১৫ নাগরিককে আটকে রাখেন। বিষয়টি নিয়ে সেখানে উত্তেজনা সৃষ্টি হয়। খবর পেয়ে কয়েক জন কর্মকর্তা ওই এলাকায় প্রবেশের চেষ্টা করলে প্রবাসী শ্রমিকদের বাধার মুখে পড়েন।

মালদ্বীপ পুলিশ সার্ভিসের দাবি, কয়েকজন কর্মকর্তা আহত হয়েছেন। একজনের মাথা ফেটে গেছে। কয়েক জনের আঙুল ভেঙেছে। তারা সবাই বা অ্যাটল হেলথ সেন্টারে চিকিৎসা নিচ্ছেন।

নির্মাণাধীন রিসোর্টে উত্তেজনা বাড়তে থাকে বৃহস্পতিবার থেকে। মালদ্বীপের ওই ১৫ নাগরিক পাওনা পরিশোধ না করে বেরিয়ে আসতে চাইলে প্রায় ২০০ প্রবাসী শ্রমিক তাদের বাধা দেন। পরে বাংলাদেশ দূতাবাসের কর্মকর্তারা গিয়ে পরিস্থিতি শান্ত করেন।

১৫ জনকে উদ্ধার করতে যেতে হয় দেশটির পাবলিক অর্ডার রেসপন্স ইউনিটকে। পুলিশ জানিয়েছে, তারা সেখানে যাওয়ার পর প্রবাসী শ্রমিকেরা কোনো বিক্ষোভ দেখাননি। তবে ‘রিসোর্টের ক্ষয়ক্ষতির দায়ে’ এবং ‘বিক্ষোভে জড়িত থাকার’ অভিযোগে ১৯ জনকে তারা গ্রেপ্তার করেছে।

আরো পড়ুন

বেরিয়ে এল ফাহিম সালেহকে হত্যা নিয়ে চাঞ্চল্যকর তথ্য!

গত ১৫ জুলাই যুক্তরাষ্ট্রের নিউ ইয়র্কে নিজের অভিজাত অ্যাপার্টমেন্টে খুন হন মেধাবি উদ্যোক্তা, পরিশ্রমী এবং …