শনিবার, ২১ সেপ্টেম্বর ২০১৯

নেপালি বোলারের ঘূর্ণিতে বার্বাডোজের প্রথম জয়

সন্দিপ লামিচানে। নেপালি লেগ স্পিনার। বছর দুয়েক আগে থেকেই আলোচনায় মাত্র ১৯ বছর বয়সী এই বোলার। এবার খেলছেন ক্যারিবিয়ান প্রিমিয়ার লিগে (সিপিএল) বার্বাডোজ ট্রাইডেন্টসের হয়ে। এবার সেন্ট কিটস অ্যান্ড নেভিসের এভিন লুইস, ডেভন থমাস, ফ্যাবিয়েন অ্যালেন কিংবা কার্লোস ব্র্যাথওয়েটরা টের পেলো তার ঘূর্ণি বিষ কতটা।

সেন্ট কিটসের ওয়ার্নার পার্কে অনুষ্ঠিত এই ম্যাচে নেপালি তরুণ লামিচানের ঘূর্ণিতে ১৮ রানের দারুণ জয় পেয়েছে বার্বাডোজ ট্রাইডেন্টস। ১৮৭ রানের লক্ষ্যে ব্যাট করতে নেমে সেন্ট কিটস অ্যান্ড নেভিস প্যাট্রিয়টস থেমে যায় ৯ উইকেটে ১৬৮ রানে। ৪ ওভারে মাত্র ২২ রান দিয়ে একাই ৩ উইকেট নেন লামিচানে। ম্যাচ সেরার পুরস্কারও তুলে দেয়া হয় তার হাতে।

টস হেরে প্রথমে ব্যাট করতে নামে বার্বাডোজ ট্রাইডেন্টস। ওপেনার জনসন চার্লসের ৪৩ বলে ৫২, তিন নম্বরে নামা লেনিকো বাউচারের ৪৭ বলে ৬২ এবং চার নম্বরে নামা জেপি ডুমিনির ১৮ বলে খেলা ৪৩ রানের টর্নেডো গতির ইনিংসের ওপর ভর করে বার্বাডোজ সংগ্রহ করে ২ উইকেট হারিয়ে ১৮৬ রান।

জবাব দিতে নেমে লরি ইভান্সের ৪১ বলে ৬৪ রান সত্ত্বেও ১৮ রানে হারতে হলো কার্লোস ব্র্যাথওয়েটের দল সেন্ট কিটসকে। মূলতঃ লামিচানের নিয়ন্ত্রিত বোলিং আর নিয়মিত বিরতিতে উইকেট পড়ার ফলে ১৬৮ রানে থেমে যেতে হয় সেন্ট কিটসকে। শেষ মুহূর্তে ডোমিনিক ড্রেকসের ১৪ বলে অপরাজিত ৩৪ রান সত্ত্বেও কোনো লাভ হলো না।

লামিচানের ৩ উইকটে ছাড়াও বার্বাডোজের হয়ে ২টি করে উইকেট নেন জেসন হোল্ডার এবং হেইডেন ওয়ালশ। ১টি করে উইকেট নেন জস লালোর এবং রোশন প্রিমাস। বার্বাডোজ ট্রাইডেন্টসের এটি প্রথম জয়। আগের ম্যাচে তারা হেরে গিয়েছিল গায়ানা অ্যামাজন ওয়ারিয়র্সের কাছে।

আরো পড়ুন

‘এ’ দলের হয়ে শ্রীলঙ্কা যাচ্ছেন সৌম্য মিরাজ সাদমান

একদমই ফর্মে নেই। সেই হার্ডহিটার সৌম্য সরকার যেন কোথায় হারিয়ে গেছেন। হার্ড হিটিং বহু দূরে, …