জাতীয়লিড নিউজ

দ. কোরিয়ায় ২২ বাংলাদেশি ইপিএস কর্মীকে সম্মাননা

দ. কোরিয়ায় ২২ বাংলাদেশি ইপিএস কর্মীকে সম্মাননা

বাংলাদেশ দূতাবাস, সিউলের উদ্যোগে শনিবার (৩০ ডিসেম্বর) যথাযোগ্য মর্যাদায় জাতীয় প্রবাসী দিবস-২০২৩ উদযাপন করা হয়েছে। দিবসটি উদযাপন উপলক্ষ্যে বাংলাদেশি ইপিএস কর্মী এবং নিয়োগকারী কোরিয়ান কোম্পানিকে তাদের অসামান্য অবদানের জন্য সম্মাননা প্রদান করা হয়।

অনুষ্ঠানের শুরুতে জাতীয় প্রবাসী দিবস-২০২৩ উপলক্ষ্যে রাষ্ট্রপতি, প্রধানমন্ত্রী, পররাষ্ট্র মন্ত্রী ও প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রীর বাণীসমূহ পাঠ করে শোনানো হয় এবং মন্ত্রণালয় কর্তৃক প্রেরিত ভিডিও ডকুমেন্টারি প্রদর্শন করা হয়।

এরপর প্রথম সচিব (শ্রম) মিকন তংচংগ্যা তার স্বাগত বক্তব্যে প্রবাসীদের কল্যাণ, মর্যাদা রক্ষায় বাংলাদেশ সরকারের বিভিন্ন উদ্যোগ এবং দূতাবাসের ভূমিকার কথা তুলে ধরেন।

রাষ্ট্রদূত দেলওয়ার হোসেন তার বক্তব্যে জাতীয় প্রবাসী দিবস-২০২৩ উপলক্ষ্যে দক্ষিণ কোরিয়ায় অবস্থানরত সকল বাংলাদেশি ইপিএস কর্মীকে অভিনন্দন জানান এবং বাংলাদেশের আর্থ-সামাজিক উন্নয়নে তাদের অবদানের কথা গুরুত্বের সঙ্গে তুলে ধরেন।

তিনি বৈদেশিক কর্মসংস্থানের সুযোগ বৃদ্ধি ও অভিবাসী কর্মীদের কল্যাণ নিশ্চিতকরণে জাতীয় ও আন্তর্জাতিক পর্যায়ে সরকারের উদ্যোগসমূহ তুলে ধরেন। তিনি দক্ষিণ কোরিয়ায় বাংলাদেশের শ্রমবাজার সম্প্রসারণে দূতাবাসের পরিকল্পনাসমূহও তুলে ধরেন।

অনুষ্ঠানে ২২ জন বাংলাদেশি ইপিএস কর্মীকে সাত ক্যাটাগরিতে সম্মাননা প্রদান করা হয়। ক্যাটাগরিসমূহ হলো-সর্বোচ্চ রেমিট্যান্স প্রেরণকারী, কোরিয়ান ভাষায় দক্ষতা ও কারিগরি দক্ষতা অর্জনকারী, দীর্ঘদিন ধরে একই কোম্পানিতে কর্মরত কর্মী, স্বেচ্ছাসেবামূলক কাজে অংশগ্রহণকারী, সাংস্কৃতিক অঙ্গনে সাফল্য অর্জনকারী এবং কোরিয়ান সরকার কর্তৃক পুরস্কৃত কর্মী।

এছাড়া সর্বোচ্চ সংখ্যক বাংলাদেশি কর্মী নিয়োগ দিয়েছেন, এরূপ ১০টি কোরিয়ান কোম্পানিকেও সম্মাননা প্রদান করা হয়। সম্মাননা গ্রহণকারীগণ স্মারক হিসেবে রাষ্ট্রদূত দেলওয়ার হোসেনের নিকট হতে ক্রেস্ট ও সনদ গ্রহণ করেন।