রবিবার, ৭ জুন ২০২০

চট্টগ্রাম বন্দর এখন ত্রি মিলিয়নিয়ার পোর্টে’র তালিকায়

 

বিশ্বের ৬০টি সমুদ্রবন্দর আছে যারা বছরে ৩০ লাখ বা ৩ মিলিয়ন একক কন্টেইনার উঠানামা করে। সেই ‘ত্রি মিলিয়নিয়ার পোর্ট’ এর তালিকায় এবার যোগ হলো দেশের প্রধান চট্টগ্রাম সমুদ্রবন্দরের নাম।

শনিবার (২১ ডিসেম্বর ২০১৯) চট্টগ্রাম সমুদ্রবন্দর ৩০ লাখ একক কন্টেইনার উঠানামার নতুন রেকর্ড গড়েছে। ২০১৯ সালের ১ জানুয়ারি থেকে গত ২০ ডিসেম্বর পর্যন্ত এই পরিমাণ কন্টেইনার উঠানামা হয়েছে চট্টগ্রাম বন্দরে। ২০১৯ সাল পূর্ণ হতে এখনও ১০ দিন বাকি আছে; তার আগেই তালিকায় নাম লেখালো চট্টগ্রাম বন্দর।

উল্লেখ্য, বিশ্বসেরা একশ সমুদ্রবন্দরের তালিকায় এখন চট্টগ্রাম বন্দরের অবস্থান ৬৪তম।  ২০১৮ সালে ২৯ লাখ একক কন্টেইনার উঠানামার বিবেচনায় এই অবস্থান অর্জন করেছে চট্টগ্রাম বন্দর। এর আগে ২০১৭ সালে এই বন্দরের অবস্থান ছিল ৭০ তম। শিপিং বিষয়ক বিশ্বের সবচে পুরণো সাময়িকী ‘লয়েডস লিস্ট’ এই তালিকা তৈরি করে প্রকাশ করে প্রতিবছর। সেই তালিকায় ৬০টি সমুদ্রবন্দর আছে; যারা বছরে ৩০ লাখ মিলিয়নের বেশি কন্টেইনার উঠানামা করে। আর চট্টগ্রাম বন্দরের অবস্থান ৬৪ তম হলেও ত্রি মিলিয়নিয়ার পোর্ট হিসেবে বিবেচিত হতো না।

বিষয়টি নিশ্চিত করে চট্টগ্রাম বন্দর সদস্য (প্রশাসন ও পরিকল্পনা) জাফর আলম  বলেন, বন্দর কর্তৃপক্ষ এবং ব্যবহারকারীদের সম্মিলিত প্রচেষ্টায় এই মাইলফলক অর্জন সম্ভব হয়েছে। সীমাবদ্ধতা ও অনেকগুরো চ্যালেঞ্জ মোকাবিলা করেই আমরা ৩০ লাখ একক হ্যান্ডলিং করতে সক্ষম হয়েছি। বিশ্বের সেরা ও ব্যস্ততম বন্দরগুলোর সাথে আমাদের চট্টগ্রাম বন্দরকে মিলানো যৌক্তিক হবে না। কারণ সেখানে বেশিরভাগ বন্দরই ট্রান্সশিপমেন্ট বন্দর; আমাদের মতো ‘এন্ড পোর্ট’ বা শেষ গন্তব্য নয়।

তিনি বলেন, এখনও যদি আমরা বন্দর থেকে ডেলিভারি দেয়া স্থানান্তর করে বে টার্মিনালে নিতে পারি তাহলে আরও বেশি সফলতা দেখাতে পারবো। লয়েডস লিস্টে আরও সামনের সারিতে থাকতে পারবো।

আরো পড়ুন

করোনার মধ্যেও ঢাকায় আসছেন গার্মেন্টস শ্রমিকরা

ঢাকা ও পার্শবর্তী এলাকার পোশাক কারখানা খোলার খবর পেয়ে বাইরের জেলাগুলো থেকে শত শত নারী-পুরুষ …