শনিবার, ১২ জুন ২০২১
হোম » ইসলাম » ঐতিহাসিক মক্কা বিজয়ের মাত্র দুই সপ্তাহ পর মক্কা ও তায়েফের মধ্যবর্তী হুনাইন উপত্যকায় এ যুদ্ধ সংঘটিত হয়েছিল

ঐতিহাসিক মক্কা বিজয়ের মাত্র দুই সপ্তাহ পর মক্কা ও তায়েফের মধ্যবর্তী হুনাইন উপত্যকায় এ যুদ্ধ সংঘটিত হয়েছিল

ঐতিহাসিক মক্কা বিজয়ের মাত্র দুই সপ্তাহ পর মক্কা ও তায়েফের মধ্যবর্তী হুনাইন উপত্যকায় এ যুদ্ধ সংঘটিত হয়েছিলখোদায়ী মদদ এসেছিল মহানবীর (সা) দোয়ার বরকতে এবং এ দোয়ার পর আলী (আ.)ও অতুলনীয় বীরত্ব দেখিয়ে বিজয়ের কাজ সহজ করে দেন। এ যুদ্ধে আমিরুল মু’মিনিন হযরত আলী (আ.)’র অপরাজেয় তরবারি জুলফিকারের আঘাতে নিহত হয় ভয়ানক কাফির কমান্ডার আবু জারুলসহ প্রায় ৪১ জন দুর্ধর্ষ কাফির কমান্ডার।

মুসলমানরা বিশ্বনবী (সা.)’র নেতৃত্বে বিনা যুদ্ধে মক্কা জয় করার পর হাওয়াজিন ও সাকিফ গোত্রের কাফিররা ইসলামের আলোর ছড়িয়ে পড়াকে রুখে দিতে এবং রাসূল (সা.)’র প্রাণনাশের মাধ্যমে এ আলোকে চিরতরে নিভিয়ে দেয়ার দৃঢ় সংকল্প নিয়ে এই যুদ্ধ চাপিয়ে দেয়।

মুসলিম মুজাহিদদের মধ্যে অনেকেই নিজেদের বিপুল সংখ্যা নিয়ে গর্বিত ছিলেন, যদিও তাদের অনেকেই মাত্র দুই সপ্তাহ আগে মক্কা বিজয়ের প্রভাবে মুসলমান হয়েছিলেন। কিন্তু ইসলামের শত্রুদের হাতে হঠাত অপ্রস্তুত অবস্থায় আক্রান্ত হয়ে আনসার ও মুহাজির নির্বিশেষে নও-মুসলিম মুজাহিদদের প্রায় সবাই রাসূল (সা.)-কে ছেড়ে পালিয়ে যান। তবে অল্প সংখ্যক বীর সাহাবিদের মধ্যে যারা রাসূল (সা.)-কে ছেড়ে যাননি তাদের মধ্যে মু’মিনদের নেতা হযরত আলী (আ.) এবং তাঁর ও রাসূল (সা.)’র চাচা হযরত আব্বাস ইবনে আবদুল মুত্তালিব (রা.) ছিলেন উল্লেখযোগ্য।

আল্লাহর সিংহ ও মু’মিনদের নেতা হযরত আলী (আ.)’র অতুলনীয় বীরত্ব যুদ্ধের মোড় ঘুরিয়ে দেয় এবং আব্বাস (রা.) উচ্চস্বরে মুজাহিদদের ফিরে আসার আহ্বান জানাতে থাকলেও একশত জনের বেশি মুজাহিদ তাতে সাড়া দেননি।

এ অবস্থায় বিশ্বনবী(সা.) আল্লাহর সাহায্য চান এবং কাফিরদের ওপর পাল্টা হামলা চালানোর নির্দেশ দেন। হযরত আলী (আ.) শুরু করেন এক বীরত্বপূর্ণ আক্রমণ। বিশ্বনবী (সা.)’র কাছ থেকে উপহার পাওয়া তরবারি জুলফিকারের অপরাজেয় আঘাত হেনে আলী (আ.) ভয়ানক কাফির যোদ্ধা আবু জারুলসহ প্রায় ৪১ জন দুর্ধর্ষ কাফির কমান্ডারকে জাহান্নামে পাঠিয়ে দেন। ফলে পিছু হটতে বাধ্য হয় কাফিররা এবং এভাবে শোচনীয়ভাবে পরাজিত হয় তারা।

মহান আল্লাহ সুরা তওবায় এই ঐতিহাসিক বিজয়ের কথা উল্লেখ করেছেন এভাবে:

২৫। নিশ্চিতভাবে আল্লাহ্‌ তোমাদের বিভিন্ন সময়ে সাহায্য করেছেন এবং হুনাইনের যুদ্ধ ক্ষেত্র স্মরণ কর যখন তোমাদের সংখ্যাধিক্য তোমাদের দাম্ভিক করেছিলো। কিন্তু তা তোমাদের কোন কাজে আসেনি এবং পৃথিবী বিস্তৃত হওয়া সত্ত্বেও তা তোমাদের জন্য সংকুচিত হয়ে গিয়েছিলো, ফলে তোমরা পিঠ দেখিয়ে পালিয়ে গিয়েছিলে।

২৬। কিন্তু এরপর আল্লাহ্‌ তাঁর রাসূল এবং বিশ্বাসীদের উপর প্রশান্তি নাজিল করেন এবং (ফেরেশতাদের)এমন এক সেনাবাহিনী পাঠান যা তোমরা দেখনি এবং অবিশ্বাসীদের শাস্তি দেন। আর এটাই অবিশ্বাসীদের প্রতিফল।

আরো পড়ুন

ব্রিটেনের রানি এলিজাবেথের ৯৫তম জন্মদিনে রাষ্ট্রপতি-প্রধানমন্ত্রীর শুভেচ্ছা

ব্রিটেনের রানি এলিজাবেথের ৯৫তম জন্মদিনে রাষ্ট্রপতি-প্রধানমন্ত্রীর শুভেচ্ছা জানিয়েছেন রাষ্ট্রপতি । মো. আবদুল হামিদ এবং প্রধানমন্ত্রী …